মাছ ধরবেন জাল নাকি মোবাইল দিয়ে?? 2


now fishing is easy via smartphones

এই পৃথিবী কতই না বিচিত্র।পৃথিবীতে নানান মানুষ,নানান রঙে,নানান ঢঙে।কতই বিচিত্র না তাদের আচার-আচরণে,কথা-বার্তায়,চাল ছলনে। তেমনি বৈচিত্র আছে  মানুষের শখের।মাছ ধরা,বই পড়া,লেখা- লেখি,ইন্টারনেট ব্রাউজ,ঘুমানো বা আরো কত কি।আজ আপনাদের জন্য নিয়ে এলাম মানুষের অন্যতম জনপ্রিয় শখের বিষয় মাছ ধরা নিয়ে।তাও আবার সচরাচর যেভাবে আমরা মাছ ধরি সেভাবে না।সম্পূর্ণ ভিন্নভাবে ,আধুনিক ভাবে আর প্রযুক্তির সাথে।তো নড়ে ছড়ে বসুন।চলুন দেখা যাক আজকের ঝুলিতে।

দিন দিন প্রযুক্তির ব্যবহার বাড়ছে।এমন কোনো কাজ নেই যেখানে প্রযুক্তির ছোঁয়া লাগে নি।তেমনি ভাবে প্রভাব ফেলেছে মাছ ধরার কাজে প্রযুক্তি।মাছ ধরতে এখন জাল বা বড়শি বা অন্য উপায়ের দিন শেষ।এখন মাছ ধরুন আরো স্মার্ট উপায়ে।দিন বদলেছে,তাই তো বদলেছে মাছ ধরার উপায়।

স্মার্ট উপায়ে মাছ ধরতে লাগবে আপনার বেশ কিছু না।যা আপনার পকেটে থাকে অতি প্রিয় স্মার্টফোন।আপনাদের মাছ ধরার কাজটি সহজ করে দিতে আমেরিকা যুক্তরাষ্টের একটি অঙ্গরাজ্য ফ্লোরিডার একটি জনপ্রিয় অ্যাপ ডেভেলপার কোম্পানি ফ্রাইডে অ্যাপ।কোম্পানি টি নিয়ে এল একটি স্মার্টফোন অ্যাপ যার নাম স্মার্ট ফিশ ফাইন্ডার।এটি আইফোন অপারেটিং সিস্টেম আইওএস আর অ্যান্ড্রয়েড অপারেটিং সিস্টেমে সাপোর্ট করে।2.4” ব্যস বিশিষ্ট গোলাকার একটি ডিভাইস এর সাহায্যে এই অ্যাপটি কাজ করে।

তো চলুন দেখা যাক এই অ্যাপটি কিভাবে কাজ করে।আপনার ডিপার ডিভাইসটি পানিতে ফেলে দিন,অবশ্য যেখান থেকে মাছ ধরবেন সেখানে।তবে বলে রাখতে চাই এই ডিভাইসটি জলনিরোধক আর শক প্রুফ।ডিপার ডিভাইসটি তরঙ্গ শক্তি ব্যবহার করে পানিতে অবস্থান রত মাছের অবস্থান নির্ণয় করে।এবার ডিপার ডিভাইস টি ব্লুটুথ প্রযুক্তি ব্যবহার করে আপনার ফোনে মাছের অবস্থানের চিত্র বা তথ্য পাঠাতে শুরু করে।এবার তো আপনি জেনে গেলেন কোন জায়গায় মাছ আছে অর্থ্যাৎ আপনি জানলেন কোন জায়গায় জাল ফেললে বা বড়শি ফেললে আপনি মাছ পেতে যাচ্ছেন।ব্লুটুথ প্রযুক্তির স্বাভাবিক দুরুত্ব অর্থ্যাৎ 150 ফুট বা 50 মিটার এর মধ্যে  আপনার ফোন আর ডিভাইসের দুরুত্ব থাকতে হবে।এছাড়াও এই ডিভাইসটি আপনাকে জানাবে পানির গভীরতা ও তাপমাত্রা সহ অন্যান্য দরকারি তথ্য।পূর্ন চার্জে আপনি িএটা 6 ঘন্টা ব্যবহার করতে পারেন।তাছাড়া আরো চমক লাগার মত ব্যাপার হলো আপনি আপনার মাছ ধরার অভিজ্ঞতা জানাতে আপনার বন্ধুদের ফেসবুক বা টুইটারে এই প্রযুক্তিতে।

এবার আসুন কোথায় আর কিভাবে পাবেন কাঙ্খিত এই ডিভাইস আর অ্যাপ,সেটা নিয়ে কথা বলা হোক।এই অ্যাপটি আপনি পাবেন আইফোনের জন্য জনপ্রিয় স্টোর আইটিউন্স স্টোরে মার্কিন ডলার 2.99 খরচ করে আর অ্যান্ড্রয়েডের জন্য গুগুল প্লে স্টোরে বিনামূল্যে।অ্যাপটা বিনামূল্যে ফেলেও ডিপার ডিভাইসের জন্য আপনাকে টাকা তো খরচ করতে হবে।ডিপার ডিভাইসটি পেতে আপনাকে গুনতে হবে মার্কিন ডলারে 149 ডলার।

বহুল ব্যবহৃত প্রযুক্তি জি.পি.এস(গ্লোবাল পজিশনিং সিস্টেম) দ্বারা অ্যাপটি মাছ ধরার কাজে সহায়তা করে।শখের বসে যারা মাছ ধরেন তাদের জন্য  এই প্রযুক্তিটি কতটা গুরুত্ব তা এই ক্ষুদ্র প্রয়াসে বলা সম্ভব হবে না।তারপরও নিরন্তন প্রচেষ্টা মাত্র।আশা করছি যারা মাছ প্রেমিক বা শখের বসে মাছ ধরেন,আপনাদের উপকারে আসবে এই লেখাটি।আপনাদের যদি কাজে লাগে তাহলে আমার চেষ্টা সার্থক হবে।নিজে কিছুটা হলোও সন্তুষ্টি লাভ করতে পারব।

বিষয়টি আরো পরিষ্কার করতে আপনারা এই ভিডিওটি দেখতে পারেন।

পরিশেষে বলা যায়,সম্ভবানাময় আজকের প্রযুক্তির যুগে আমরা দিন দিন প্রযুক্তি নির্ভর হচ্ছি।যদিও এ বিষয়টা আমাদের জন্য শুভকর।কিন্তু এর পাশাপাশি এর নেতিবাচক দিক তো আছেই।আমাদের সাবধান থাকতে হবে এ  ব্যাপারে।আমরা যেন অহেতুক অন্যের ক্ষতি করার উদ্দেশ্যে এটাকে কাজে না লাগাই।এই প্রযুক্তি যেন আমরা আপনার সকলের জন্য মঙ্গল বয়ে আনে।কোনো অমঙ্গল জনক কাজ আমাদের কাম্য নয়।আজ তাহলে শেষ করতে হচ্ছে।আর বেশি কথা বাড়াচ্ছি না।এতক্ষণ কষ্ট করে আমার লেখা পড়ার জন্য আপনাদের অনেক অনেক ধন্যবাদ।আগামীতে দেখা হওয়া পর্যন্ত সুস্থ-সবল আর নিরাপদ থাকবেন।এই কামনা করে আজ বিদায় নিচ্ছি।